গভীর বিশ্লেষক-এর ব্লগ

প্রিন্ট প্রকাশনা

মেয়েদের ছবিও দোকানে বিক্রি হয়!

লিখেছেন: গভীর বিশ্লেষক

একটা সত্যি ঘটনা শেয়ার করি সবার সাথে। কয়েকদিন আগে গুলশান-২ এ যাবার জন্য বাস উঠি। কিছুদুর যাবার পরে বসার জন্য সিট পাই। বসার পরে আমার পাশের সিটে দেখি একজন লুঙ্গি পড়া ভদ্রলোক (!) বেশ আগ্রহ নিয়ে তার চাইনিজ টাচফোন ব্যবহার করছেন। প্রথমে অত ভালভাবে খেয়াল করি নাই যে উনি কি করছেন। পরে হটাত করে খেয়াল করে দেখলাম যে উনি খুব আগ্রহ নিয়ে বেশ কিছু সুন্দরী মেয়ের ছবি দেখে চলেছেন একের পর এক।

প্রথমে ভাবলাম উনারা হয়তো তার আত্মীয় হবে। পরে কিছু স্মার্ট, মডেল এবং ভাল ঘরের মেয়েদের ছবি দেখলাম তখন সন্দেহ হতে শুরু করল। কারণ লোকটি যে রকম নিম্নবিত্ত ঘরের, তার এই রকম শতাধিক আত্মীয় তাও শুধু মেয়ে হতেই পারে না। ছবিগুলো তাহলে পেল কোথায়? কিভাবে আসলো?

কিছুটা সংকচ এবং আগ্রহ নিয়েই অনেকটা অভিনয় করে তাকে জিজ্ঞেস করলাম, “ভাই মেয়েদের ছবিগুলা তো অনেক সুন্দর, মোবাইলে পেলেন কই?”

উনি বললেন, “কেন, আপনার লাগবে নাকি? এই রকম আরও ছবি আছে।”

আমি বললাম, “কি করব ভাই, বান্ধবী নাই, বউ নাই, ছবিগুলা দেখে ভাল লাগছে, নিজের কাছে রাখলে আরও ভাল লাগবে। মাঝেমধ্যে দেখতে পারব। কোথায় কিভাবে পাব?”

উনি বললেন, “টাকা দিলেই পাইবেন, গুলিস্তানের মোবাইলের দোকানগুলাতে পাওয়া যায়।”

শুনে আমি কিছুটা সময় স্তব্ধ হয়ে বসে থাকি। অবাক হয়ে ভাবি হায়রে মানুষ এর নিম্ন মন মানসিকতা! আগে দেখতাম মানুষ দোকানে গিয়ে গান, হিন্দি আইটেম গান, পর্ণ ইত্যাদি মেমোরি কার্ডে নিত। আর এখন সুন্দরী মেয়েদের ছবিও অবলীলায় বিক্রি হয়।

কখনোও কি একবার চিন্তা করে দেখেছেন কারো মোবাইলে আপনার মা/বোন/স্ত্রী এর ছবি থাকতে পারে? কখনোও কি একবার ভেবে দেখেছেন আপনার কাছের বান্ধবী বা মেয়েটি অন্য কারো নোংরা লালসার শিকার হতে পারে শুধু একটি ছবির মাধ্যমে?

আগে ছবি পাওয়া যেত না। আর এখন প্রযুক্তি এইটা আরও সহজলভ্য করে তুলেছে। ফেসবুক, টুইটার, ফ্লিকার ইত্যাদি সামাজিক যোগাযোগ সাইটগুলোতে প্রোফাইল খুলার মাধ্যমে পাওয়া যাচ্ছে। আর এইখান থেকেই সুবিধা নিচ্ছে বিভিন্ন বিকৃত রুচির মানুষগুলো।

আপনার পরিচিত মেয়েটি/বোন/বান্ধবী কে বলুন তার সামাজিক যোগাযোগের একাউন্ট বা প্রোফাইলটি একটু সাবধানে রাখে। ছবিগুলো যেন নোংরা রুচির মানুষের কাছে না যায়। প্রত্যেকবার সিকিউরিটি এবং প্রাইভেসি ঠিক আছে কিনা দেখে রাখতে। অজানা কাউকে ইন্টারনেট এ বন্ধু হিসেবে গ্রহন করার আগে বেশ কয়েকবার ভেবে চিন্তা করে গ্রহন করুন। অনেক সময় কাছের আপনজন ও ক্ষতি করে বসে। তাই সাবধানে থাকুন। আমরা চাই আমাদের সমাজে মেয়েরা নিরাপদ থাকুক।

এ লেখার লিংক: http://projonmoblog.com/aurindom/23006.html

 1 টি মন্তব্য

  1. A LIBRARY OF RURAL DEVELOPMENT

    আসলে এটা আমাদের সামাজিক পরিবেশের জন্য হুমকিই বটে । মানুষের নৈতিকতা চরমভাবে হ্রাস পাওয়াতেই এমন কাজ করতে পারে । সবারই এদের কাছ থেকে সাবধান থাকতে হবে । ধণ্যবাদ লেখককে ।

মন্তব্য করুন